Education

লাখো কন্ঠে সোনার বাংলা

lakhokonthe

আসুন শিখি

(BBA Best suggestion 2) নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্যসমূহ আলােচনা কর। অথবা, নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্যগুলাে ব্যাখ্যা কর।

নিরপেক্ষ রেখা এমন একটি রেখা যার বিভিন্ন বিন্দু দ্বারা প্রকাশিত দুটি দ্রব্যের বিভিন্ন সংমিশ্রণ থেকে ভােক্তা সম পরিমাণ সন্তুষ্টি বা উপযােগ পায়। এই রেখার প্রতিটি বিন্দুতে মােট উপযােগ সমান থাকে। ফলে এদের পছন্দের ব্যাপারে ভােক্তা নিরপেক্ষ থাকে।

নিরপেক্ষ রেখা তত্ত্বে বেশ কিছু অনুমিতির আশ্রয় গ্রহণ করা হয়। সেগুলাে থেকে নিরপেক্ষ রেখার একাধিক বৈশিষ্ট্য পাওয়া যায়।

নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য :

নিরপেক্ষ রেখার কতগুলাে স্বতন্ত্র বৈশিষ্ট্য রয়েছে। নিম্নে এই বৈশিষ্ট্যগুলাে আলােচনা করা হলাে :

১. নিরপেক্ষ রেখা বামদিক থেকে ডানদিকে নিম্ন গামী :
নিরপেক্ষ রেখা সবসময় বামদিক থেকে ডানদিকে নিম্ন গামী হয়। ফলে, ভােক্তা যে দ্রব্য দুটি ভােগ করে তাদের মধ্যে থেকে একটি দ্রব্যের ভােগ বাড়াতে গেলে অন্য দ্রব্যের ভােগ কমাতে হয়।

নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য
চিত্র: নিরপেক্ষ রেখা বামদিক থেকে ডানদিকে নিম্ন গামী

( নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য )

চিত্রে ভূমি অক্ষে OX দ্রব্যের ভােগ এবং লম্ব অক্ষে OY দ্রব্যের ভােগ দেখানাে হয়েছে। II’ হলাে ডানদিকে নিম্নগামী নিরপেক্ষ রেখা। II’ নিরপেক্ষ রেখার a বিন্দু অনুসারে ভােক্তা X দ্রব্য 1 একক এবং Y দ্রব্য 5 একক ভােগ করে।

এখন b বিন্দু অনুসারে X দ্রব্যের ভােগ 2 এককে বাড়াতে গেলে Y দ্রব্যের ভােগ 3 একক কমাতে হয়। দু’টি দ্রব্যের মধ্যে এ ধরনের সম্পর্ক কেবলমাত্র ডানদিকে নিম্ন গামী রেখা দ্বারাই দেখানাে সম্ভব।

২. নিরপেক্ষ রেখা মূল বিন্দুর দিকে উত্তল :
নিরপেক্ষ রেখা মূল বিন্দুর দিকে উত্তল হওয়ার অর্থ হলাে, দুটি দ্রব্যের প্রান্তিক বিকল্পনের হার (Marginal Rate of Substitute = MRS) ঋণাত্মক হয়।

( নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য )

চিত্রে II’ একটি নিরপেক্ষ রেখা। II’ নিরপেক্ষ রেখা a বিন্দু অনুসারে ভােক্তা X দ্রব্য 1একক এবং Y দ্রব্য 5 একক ভােগ করে। b বিন্দু অনুসারে X দ্রব্যের ভােগ 1 একক বাড়াতে গেলে Y দ্রব্যের ভােগ 2 একক কমাতে হয়। এরপরে c বিন্দু অনুসারে x দ্রব্যের ভােগ আরাে 1 একক বাড়াতে গেলে Y দ্রব্যের ভােগ আরাে 1 একক কমাতে হয়। কাজেই দেখা যায়, X এর জন্য Y এর প্রান্তিক বিকল্পনের হার ক্রমহাসমান। ফলে, I নিরপেক্ষ রেখাটি মূল বিন্দুর দিকে উত্তল। নিরপেক্ষ রেখা মূল বিন্দুর দিকে অবতল হলে X এর জন্য Y এর প্রান্তিক বিকল্পনের হার ঋণাত্মক হয়ে যায়।

৩. উচ্চতর নিরপেক্ষ রেখা অধিক উপযােগ নির্দেশ করে:

কতগুলাে নিরপেক্ষ রেখা পাশাপাশি অবস্থান করলে, তাদের মধ্যে উচ্চতর নিরপেক্ষ রেখা নিম্ন তর নিরপেক্ষ রেখার চেয়ে অধিক উপযােগ নির্দেশ করে।

চিত্র : উচ্চতর নিরপেক্ষ রেখা অধিক উপযােগ নির্দেশ করে

(নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য)

চিত্রে I1,I2 , এবং I3 তিনটি নিরপেক্ষ রেখা।
I1 নিরপেক্ষ রেখার A বিন্দুতে X দ্রব্য 1 একক এবং Y দ্রব্য 4 একক ভােগ করা হয়। আবার, I2 নিরপেক্ষ রেখার B বিন্দুতে X দ্রব্য 2 একক এবং Y দ্রব্য 4 একক ভােগ করা হয়। A বিন্দুর তুলনায় B বিন্দুতে Y একই পরিমাণ থাকলেও X দ্রব্যের ভােগ বৃদ্ধি পেয়েছে। ফলে, A বিন্দুর তুলনায় B বিন্দুতে অধিক উপযােগ প্রকাশ পায়। একইভাবে, B বিন্দুর তুলনায় C বিন্দুতে Y দ্রব্যের ভােগ একই পরিমাণ থাকলেও X দ্রব্যের ভোগ বৃদ্ধি পায়। ফলে, B বিন্দুর তুলনায় C বিন্দুতে অধিক উপযােগ প্রকাশ পায়। কাজেই দেখা যায়, উপযােগের দিক থেকে I3 > I2 >I1

৪. নিরপেক্ষ রেখা পরস্পরকে ছেদ করে না : দু’টি নিরপেক্ষ রেখা পরস্পরকে ছেদ করে না। যদি দু’টি নিরপেক্ষ রেখা পরস্পরকে ছেদ করলে উপযযাগের বিভিন্নতা লক্ষ করা যায়। অথচ ছেদ বিন্দুতে একই পরিমাণ উপযােগ নির্দেশ করে।

চিত্র : নিরপেক্ষ রেখা পরস্পরকে ছেদ করে

(নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য)

না। চিত্রে I1 এবং I2 দু’টি নিরপেক্ষ রেখা। I1 নিরপেক্ষ রেখা অনুসারে উপযােগের দিক থেকে A = E = D। আবার, I2 নিরপেক্ষ রেখা অনুসারে উপযােগের দিক থেকে B = E = C

যেহেতু, উপযােগের দিক থেকে A = E এবং B = E, সেহেতু A = B হবে। কিন্তু তা অসম্ভব। কারণ, B বিন্দুর তুলনায় A বিন্দ উচ্চতর নিরপেক্ষ রেখায় অবস্থিত। ফলে, উপযােগের দিক থেকে A > B হবে। একইভাবে, E = D এবং E = C বলে D = C হবে। কিন্তু, চিত্র অনুসারে উপযােগের দিক থেকে C> D। | কাজেই, নিরপেক্ষ রেখা পরস্পরকে ছেদ করলে একবার A বিন্দু ও B বিন্দু সমান উপযােগ নির্দেশ করে। আবার, ভিন্ন। যুক্তিতে A বিন্দুর B চেয়ে বেশি উপযােগ নির্দেশ করে, যা পর্যায়ক্রমিক নিয়মের পরিপন্থি।

৫. নিরপেক্ষ রেখা কোন অক্ষকে সম্পর্শ করবে না:
নিরপেক্ষ রেখা ভূমি বা লম্ব অক্ষকে স্পর্শ করবে না। নিরপেক্ষ রেখার প্রতিটি বিন্দুতে দুটি দ্রব্যের বিভিন্ন সংমিশ্রণ প্রকাশ পায়। যদি নিরপেক্ষ রেখা ভূমি বা লম্ব অক্ষকে স্পর্শ করে তাহলে স্পর্শ বিন্দুতে একটি মাত্র দ্রব্যের ভােগ প্রকাশ পাবে। যা দ্বারা নিরপেক্ষ রেখা সম্ভব নয়। Yদ্রব্যের ভােগ | | | Xদ্রব্যের ভােগ। _

চিত্র : নিরপেক্ষ রেখা কোন অক্ষকে সম্পর্শ করবে না।

( নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য )

নিরপেক্ষ রেখা অনুসারে A বিন্দুতে Y দ্রব্য OA পরিমাণ ভােগ করা হয় কিন্তু X দ্রব্য মােটেও ভােগ করা হয় না। আবার, B বিন্দু অনুসারে X দ্রব্য OB পরিমাণ ভােগ করা হয় কিন্তু Y দ্রব্য মােটেও ভােগ করা হয় না। এই কারণে A বিন্দু বা B বিন্দু নিরপেক্ষ রেখার কোন বিন্দু হতে পারে না।

(নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য) (অর্থনীতি)
প্রশ্ন : ৫। মিশ্র জাতি বলা হয় ? অথবা, বাঙালিকে কেন সংকর বা মিশ্র জাতি বলা হয় ?
৪. প্রশ্ন : বাংলা নামের উৎপত্তি কিভাবে হয়? অথবা, বাংলা নামের উৎপত্তি সম্পর্কে টীকা লিখ। অথবা, বাংলা নামের উৎপত্তি সম্পর্কে সংক্ষেপে লিখ।
(নিরপেক্ষ রেখার বৈশিষ্ট্য)

Leave a Comment

Your email address will not be published.