শিক্ষা কি বা শিক্ষার ধারণা সমূহ কি কি

0
64

শিক্ষার ধারণা

Concept of Education

মানবসমাজ মাত্রেরই একটি মৌলিক কার্যপ্রক্রিয়া হলো শিক্ষা। শিক্ষা একটি জীবনব্যাপী প্রক্রিয়া। গ্রিক চিন্তাবিদদের কাছে শিক্ষা হলো বিকাশ সাধনের স্বার্থে বিশেষ এক সুসংবদ্ধ ও সচেতন পদ্ধতি।

শিক্ষা বলতে নির্দিষ্ট কিছু বিষয়ে শিক্ষার্থীকে শিক্ষণ বা পাঠদানকেই শুধু বোঝায় না; শিক্ষা হলো প্রধানত শিক্ষার্থীকে বড় করে তোলা বা সাফল্যের সঙ্গে ভবিষ্যতের সম্মুখীন হওয়ার জন্য তার মধ্যে প্রয়োজনীয় অভ্যাস এবং মনোভাব-মানসিকতা গড়ে তোলা।

এককথায় শিক্ষা হলো ব্যক্তির সর্বাঙ্গীণ বিকাশের নিরবচ্ছিন্ন প্রক্রিয়া।
শিক্ষা শব্দটি সংস্কৃত ‘শাস’ ধাতু থেকে এসেছে। যার অর্থ শাসন, নির্দেশ, আজ্ঞা, নিয়ন্ত্রণ, তিরস্কার, শাস্তিদান ইত্যাদি ।

শিক্ষার আর একটি যথার্থ শব্দ হলো ‘বিদ্যা’। বিদ্যা শব্দটি ‘বিদ’ ধাতু থেকে এসেছে। ‘বিদ’ বলতে ‘জানা’, ‘জ্ঞান আহরণ’ করাকে বোঝায় ।

শিক্ষার ইংরেজি প্রতিশব্দ education। এ শব্দটি এসেছে মূল ল্যাটিন শব্দ থেকে। ল্যাটিন ভাষায় তিনটি মৌলিক শব্দের সন্ধান পাওয়া যায়।

যথা- educare, educere এবং educatum, educare শব্দের অর্থ হচ্ছে লালন- পালন করা (to rear up), প্রতিপালন করা (to bring up)।

অর্থাৎ শিশুকে আদর-যত্নের মাধ্যমে পরিপূর্ণ জীবনযাপনের জন্য প্রয়োজনীয় জ্ঞান ও দক্ষতা অর্জনে সহায়তা করা।

Educare শব্দের পরিপূর্ণ অর্থ হলো ভিতর থেকে বাইরে নিয়ে আসা বা অন্তর্নিহিত শক্তি বা গুণাবলির বিকাশ সাধনে সহায়তা করা।

বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ জন ডিউই-এর মতে, “শিক্ষা বলতে পরিপূর্ণ জীবন বিকাশকেই বোঝায়।

পরিপূর্ণ বিকাশ বলতে সেসব গুণের বিকাশকে বোঝায় যা দ্বারা ব্যক্তি তার পরিবেশকে নিয়ন্ত্রণ করে নিজের সমস্ত সম্ভাবনার বিকাশ সাধন করতে পারে।”

দার্শনিক সক্রেটিস বলেছেন, “শিক্ষা হলো মিথ্যার অপনোদন ও সত্যের আবিষ্কার। অর্থাৎ মিথ্যাকে পরিহার করে সত্যকে প্রতিষ্ঠা করাই হচ্ছে শিক্ষা।”

দার্শনিক অ্যারিস্টটল বলেন, “সুস্থ দেহে সুস্থ মন তৈরি করাই হলো শিক্ষা।”

(Education of sound mind in a sound society body).
প্লেটোর মতে, “শিক্ষা হলো শিক্ষার্থীর নিজস্ব ক্ষমতা অনুযায়ী দেহ-মনের সার্বিক বিকাশ সাধন করা।”

(Education develops in the body and soul of the pupil all the beauty and all the perfection he is capable of.)

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বলেছেন, “শ্রেষ্ঠ শিক্ষা হলো তা-ই যা আমাদের কেবল তথ্য পরিবেশনই করে না, বিশ্বসত্তার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে আমাদের জীবনকে গড়ে তোলে।”

মোটকথা, পরিবেশের সাথে সামঞ্জস্য রেখে বেঁচে থাকার যে কলাকৌশল তাই শিক্ষা।

শিক্ষার লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য (Aims and Objective of Education) :
শিক্ষার কিছু লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য রয়েছে। যেমন-

শিক্ষা ব্যক্তিত্বের বিকাশ ঘটাতে সাহায্য করে;

  • গণতান্ত্রিক চেতনাবোধের বিকাশ ঘটায়;
    অন্য ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হতে শেখায়;
  • বস্তুনিষ্ঠ ও ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গির পাশাপাশি মুক্ত চিন্তার বিকাশ ঘটাতে সাহায্য করে;

•জাতি, ধর্ম, বর্ণ, নারী-পুরুষ নির্বিশেষে বৈষম্য দূর করে;
মৌল ভ্রাতৃত্ববোধ সৃষ্টি করে;
সোহার্দ ও সহমর্মিতাবোধ গড়ে তুলতে সাহায্য করে।